ট্রাইব্যুনালের ওপর অর্পিত ক্ষমতা ও দায়িত্ব

  • কাস্টমস্ ও ভ্যাট সংশি­ষ্ট মামলা গ্রহণ করা ও মামলা নিষ্পত্তি করা।

  • আপীল  সংশি­ষ্ট পক্ষসমূহের শুনানী গ্রহণ করা।

  • যে সিদ্ধান্ত বা আদেশের বির“দ্ধে আপীল, তা বহাল রাখা (Confirming); পরিবর্তন করা (Modifying) বা বাতিল করে (Annulling) বিবেচনায় সঙ্গত যে কোন আদেশ প্রদান করা।

  • মামলার বিচারকার্য পরিচালনার ক্ষেত্রে উদঘাটন এবং পরিদর্শন।

  • কোন ব্যক্তির উপস্থিতি নিশ্চিত করা এবং শপথ বাক্য পাঠ করে পরীক্ষা করা।

  • হিসাব বহি এবং অন্যান্য দলিলপত্র পেশে বাধ্য করা।

  • কমিশন জারী করা।

  • দ্বৈত বেঞ্চ সমূহের বৈঠকের স্থান নির্দিষ্ট করার ক্ষমতাসহ ট্রাইব্যুনাল এবং বেঞ্চ সমূহের কার্যপদ্ধতি নির্ধারণ করার ক্ষমতা।

  • আপীল দায়েরের সংশি­ষ্ট সময়সীমা অতিবাহিত হওয়ার পরও বিশেষ বিবেচনায় সন্তুষ্টি সাপেক্ষে কোন আপীল গ্রহণ করা বা প্রতি আপত্তিস্মারক দাখিল করার অনুমতি প্রদান করা।

  • ভ্যাট বিষয়ক মামলা ০২ বৎসর এং শুল্ক বিষয়ক মামলা ০৪ বৎসরের মধ্যে নিষ্পত্তি করা।

  • কাস্টমস্ বিষয়ক মামলার ক্ষেত্রে প্রদত্ত কোন আদেশের নথিপত্র দৃষ্টে কোন ভুল সংশোধন, কমিশনার বা আপীলের অন্যপক্ষ কর্তৃক কোন ভুল নজরে আনা হলে ০৪ বৎসরের মধ্যে যে কোন সময়ে আদেশ সংশোধন করা।
Website Design & Developed by ABH World